ছেলের আঘাতে বাবার মৃত্যু, সাবেক ইউপি সদস্য আটক

Dhaka Post Desk

জেলা প্রতিনিধি, জয়পুরহাট

১৫ মে ২০২২, ০১:৩২ পিএম


ছেলের আঘাতে বাবার মৃত্যু, সাবেক ইউপি সদস্য আটক

জয়পুরহাটের পাঁচবিবিতে সাবেক ইউপি সদস্য ছেলের আঘাতে বাবার মৃত্যু হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। রোববার (১৫ মে) সকালে উপজেলার আটাপুর বরণ গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর অভিযুক্ত ছেলেকে আটক করেছে পুলিশ।

মারা যাওয়া ওই ব্যক্তি বরণ গ্রামের আব্দুল কাদের দেওয়ান (৬৭)। অভিযুক্ত ছেলের নাম সুলতান মাহমুদ দেওয়ান (৪০)। তিনি আটাপুর ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক সদস্য।

নিহতের পরিবার ও প্রতিবেশীরা জানায়, সুলতান আচার-আচরণে উগ্র। সব সময় বাড়ির লোকজনের সঙ্গে কারণে-অকারণে মারপিটসহ খারাপ আচরণ করতেন। শনিবার দুপুরে স্ত্রী, মেয়ে ও ছোট ছেলেকে মারপিট করেন। রাতে ঘুমানোর সময় বাবাকে ঘর থেকে বের করে দেন। সে সময় তার বাবা রান্নাঘরে ঘুমান। সকালে সুলতান তার ঘর থেকে বের হয়ে বাবাকে দেখতে পেয়ে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ শুরু করেন।

এক পর্যায়ে রান্নাঘরে থাকা খাটের পায়া দিয়ে বাবার মাথায় আঘাত করে। তখন বৃদ্ধ চিৎকার করলেও সুলতানের ভয়ে কেউ ঘর থেকে বের হয়নি। পরে সুলতান তার বাবার মরদেহ ঘরের মধ্যে নিয়ে যায়। সকালে প্রতিবেশীরা বিষয়টি পুলিশকে জানায়।

আটাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আ.স.ম সামসুল আরেফিন চৌধুরী বলেন, সুলতান বদমেজাজি ও উগ্র প্রকৃতির। সে প্রায় তার স্ত্রী-সন্তানদের মারধর করতেন। তার স্ত্রী বিষয়টি আমাকে, থানায় ও ইউএনও অফিসে জানিয়েছে। ইউপি সদস্য থাকার সময় সে আমার কোনো কথায় শুনতেন না। নির্বাচনে হেরে যাওয়ার পর আরও উগ্র হন। গতকালও স্ত্রী-সন্তানদের মারধর করেছেন। এমনকি বাবাকে গালিগালাজ করেন। সকালে বাবাকে দেখে রেগে গিয়ে খাটের পায়া দিয়ে মাথায় আঘাত করে। এতে তার বাবার মৃত্যু হয়।

পাঁচবিবি সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার ইশতিয়াক আলম ঢাকা পোস্টকে বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে অভিযুক্তকে আটক করা হয়েছে। জানা গেছে, সে দীর্ঘদিন ধরে তার স্ত্রী, দুই সন্তান, বাবাকে গালিগালাজ, মারধর করতেন। সে কেন এমন করত এ বিষয়ে আমরা তদন্ত করছি। এ ঘটনায় মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

চম্পক কুমার/এসপি

Link copied