শত্রুতার বিষে মারা গেল খামারির ৯৮৩ হাঁস

Dhaka Post Desk

জেলা প্রতিনিধি

নেত্রকাণা

২০ মে ২০২২, ০২:২৭ এএম


শত্রুতার বিষে মারা গেল খামারির ৯৮৩ হাঁস

নেত্রকোণায় পূর্ব শত্রুতার জেরে বিষ প্রয়োগ করে সিদ্দিক মিয়া নামে এক খামারির ৯৮৩টি হাঁস মেরে ফেলার অভিযোগ পাওয়া গেছে। বৃহস্পতিবার (১৯ মে) জেলার বারহাট্টা হরিয়াতলা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। 

এ ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্ত ওই খামারি স্থানীয় বাচু মিয়ার ছেলে এনামুল হক, নাজমুল হক ও তাজমুল হকের বিরুদ্ধে বারহাট্টা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

বৃহস্পতিবার রাতে বারহাট্টা থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) লুৎফুল হক এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

ওসি জানান, অভিযোগ পেয়ে তাৎক্ষণিকভাবে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়। তদন্ত করে ঘটনাটির বিষয়ে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। 

এদিকে পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, খামারি সিদ্দিক মিয়া প্রতিদিনই তার খামারের হাঁসগুলোকে বাড়ির পাশে পানি জমে থাকা একটি জমিতে খাবার খাওয়াতেন। বৃহস্পতিবার খাবার খাওয়ানোর জন্য হাঁসগুলোকে ওই জমিতে নিয়ে যান তিনি। কিন্তু পূর্ব শত্রুতার জের ধরে আগে থেকেই ওই জমিতে বিষ প্রয়োগ করে রাখেন এনামুল হক, নাজমুল হক ও তাজমুল হক। ওই জমিতে হাঁসগুলো খাবার খাওয়ার পর একে একে ৯৮৩টি হাঁস মারা যায়। 

খামারি সিদ্দিক মিয়া তার লিখিত অভিযোগে উল্লেখ করেন, প্রতিপক্ষের লোকজন দীর্ঘদিন ধরে তার খামারের ক্ষতি করার হুমকি দিয়ে আসছিল। এরই জেরে বৃহস্পতিবার ভোরে অভিযুক্তরা বাড়ির পাশের ওই জমির পানিতে বিষ দিয়ে রাখে। তাদের বিষ প্রয়োগের কারণেই আমার খামারের ৯৮৩টি হাঁস মারা গেছে।

এ নিয়ে কথা হলে আসমা ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান মো. শফিকুল ইসলাম খান বলেন, হাঁস মেরে ফেলার ঘটনাটি শুনে আমি ঘটনাস্থলে গিয়েছিলাম এবং মরা হাঁসগুলো দেখে এসেছি। বিষয়টি খুবই দুঃখজনক।

এ নিয়ে মন্তব্য জানতে অভিযুক্তদের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাদের বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

মো. জিয়াউর রহমান/এসকেডি

Link copied