কেমিক্যাল ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্কে ৮০ হাজার মানুষের কর্মসংস্থান হবে

Dhaka Post Desk

জেলা প্রতিনিধি, মুন্সীগঞ্জ

২১ মে ২০২২, ০৭:১৯ পিএম


কেমিক্যাল ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্কে ৮০ হাজার মানুষের কর্মসংস্থান হবে

শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন বলেছেন, আগামী ডিসেম্বরে বিসিক কেমিক্যাল ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্কের পাইলিং ও দেয়াল নিমার্ণ কাজ সম্পন্ন হবে। এখানে প্রত্যক্ষভাবে ৮০ হাজার মানুষের কর্মসংস্থান সৃষ্টি হবে। 

শনিবার (২১ মে) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখানে বিসিক কেমিক্যাল ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্ক পরিদর্শনকালে তিনি এসব কথা বলেন। 

শিল্পমন্ত্রী বলেন, এটা প্রধানমন্ত্রীর অগ্রাধিকার প্রকল্প হিসেবে নিয়েছি। বিভিন্ন কারণে কিছুটা থেমে থাকলেও এখন প্রকল্পের কাজ শুরু হয়েছে। এটা সম্পন্ন হলে মুন্সীগঞ্জের মানুষের কর্মসংস্থান সৃষ্টি হবে। এটাকে ঘিরে রাস্তাঘাট ও যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতি হবে।

তিনি জানান, উপজেলার চিত্রকোট ইউনিয়নের গোয়ালখালি, কামাড়কান্দা ও চিত্রকোট মৌজার ৩০৮.৩৩ একর জমিতে বিসিক কেমিক্যাল ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্ক স্থাপন প্রকল্প অনুমোদন দেয় একনেক। এর ব্যয় ধরা হয়েছে ১ হাজার ৩ কোটি টাকা। ২০২১ সালে জমি ভরাটের কাজ শুরু করে ঠিকাদার প্রতিষ্ঠান। আগামী সেপ্টেম্বরের মধ্যে বালু ভরাটের কাজ শেষ হলে ডিসেম্বরের মধ্যে পাইলিং ও দেয়াল নিমার্ণ কাজ শেষ করতে হবে। 

এ সময় মন্ত্রীর সঙ্গে ছিলেন শিল্প মন্ত্রণালয়ের সচিব জাকিয়া সুলতানা, বিসিকের চেয়ারম্যান মুহম্মদ মাহবুবুর রহমান, আঞ্চলিক পরিচালক আব্দুল মতিন, অতিরিক্ত সচিব নূরুল আলম, যুগ্ম সচিব আনোয়ারুল আলম, উপসচিব হারুন অর রশিদ, মুন্সীগঞ্জের জেলা প্রশাসক কাজী নাহিদ রসুল ও প্রকল্প পরিচালক মুহাম্মদ হাফিজুর রহমান। 

উপস্থিত ছিলেন সিরাজদিখান উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন আহমেদ, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. শরীফুল আলম তানভীর, সহকারী কমিশনার (ভূমি) তাসনিম আক্তার, সহকারী পুলিশ সুপার রাসেদুল ইসলাম প্রমুখ

উল্লখ্য, ২০১৯ সালের ৩০ এপ্রিল মুন্সীগঞ্জের সিরাজদিখানের চিত্রকোট ইউনিয়নে ৩০৮ একর জমিতে বিসিক কেমিক্যাল ইন্ডাস্ট্রিয়াল পার্ক নির্মাণ প্রকল্পের অনুমোদন দেয় জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি (একনেক)। যার নাম দেওয়া হয় মুন্সীগঞ্জ বিসিক কেমিক্যাল ইন্ডাস্ট্রিয়াাল পার্ক সংশোধিত প্রকল্প। প্রক্রিয়া শুরুর পরে কেটে গেছে ১৮ মাস। এছাড়া পাশেই ১০০ একর জায়গায় মুদ্রণ শিল্প পার্ক তৈরির প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে।

ব.ম শামীম/আরএআর

Link copied