অবশেষে চালু হচ্ছে চিলাহাটি ফায়ার সার্ভিস স্টেশন

Dhaka Post Desk

জেলা প্রতিনিধি, নীলফামারী

১৫ মার্চ ২০২১, ১০:৫৩ পিএম


অবশেষে চালু হচ্ছে চিলাহাটি ফায়ার সার্ভিস স্টেশন

চিলাহাটি ফায়ার সার্ভিস স্টেশন

নীলফামারীর ডোমার উপজেলার চিলাহাটি ফায়ার সার্ভিস স্টেশন অবশেষে চালু হচ্ছে। স্টেশনে স্থাপিত গভীর নলকূপের পানিতে মাত্রা অতিরিক্ত আয়রনের উপস্থিতির কারণে পানিবাহী গাড়ি ও অন্যান্য যন্ত্রাংশের ক্ষতির আশঙ্কায় উদ্বোধনের পর দুই বছর ধরে এটির কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে। 

সমস্যা সমাধানে সম্প্রতি সেখানে পানি পরিশোধনের জন্য ক্ষতিকারক আয়রন অপসারণ যন্ত্র বসিয়েছে নীলফামারী জেলা গণপূর্ত বিভাগ। চলতি সপ্তাহেই স্টেশনটির কার্যক্রম শুরু করতে জোর প্রস্তুতি নিয়েছে ফায়ার সার্ভিস স্টেশন কর্তৃপক্ষ।

নীলফামারী গণপূর্ত বিভাগের উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী দেলওয়ার মাহফুজ সোহাগ ঢাকা পোস্টকে জানান, চিলাহাটি ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের পানির সমস্যা নিরসনে আয়রন অপসারণ যন্ত্র স্থাপন করা হয়েছে।

নীলফামারী ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশনের উপ-সহকারী পরিচালক মো. আমিরুল ইসলাম সরকার জানান, চিলাহাটি ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের জন্য লোকবল,গাড়ি, মেশিনসহ সকল মালামাল স্টেশনে পৌঁছানো হয়েছে। ডোমার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার সম্মতি পেলে আগামাী ১৭ মার্চ থেকে স্টেশনটির কার্যক্রম শুরু হতে পারে।

তিনি বলেন, গণপূর্ত বিভাগ ও ফায়ার সার্ভিসের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের আলাপ-আলোচনার মাধ্যমে অস্থায়ী ভিত্তিতে পানিতে আয়রনের মাত্রা কমাতে ওয়াটার ট্রিটমেন্ট প্ল্যান্ট বসানো হয়েছে। আগামী অর্থবছরে নতুন বরাদ্দ পেলে এ সমস্যার স্থায়ী সমাধান হবে বলে আশা করছি।

জেলা ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশন সূত্রে জানা যায়, ২০১৭ সালের ১০ জানুয়ারি ৩ কোটি ২২ লাখ টাকা ব্যয়ে চিলাহাটিতে পূর্ণাঙ্গ ফায়ার সার্ভিস স্টেশন ভবন নির্মাণে একটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানকে কার্যাদেশ দেয় নীলফামারী জেলা গণপূর্ত বিভাগ। ২০১৮ সালের জুলাই মাসে এটির কাজ শেষ হয়। একই বছরের ১ নভেম্বর চিলাহাটি ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

কিন্তু সেখানে স্থাপিত গভীর নলকূপের পানি জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদফতর রংপুর আঞ্চলিক ল্যাবরেটরিতে পরীক্ষা-নিরীক্ষায় মাত্রা অতিরিক্ত আয়রনের উপস্থিতি ধরা পড়ে। যা জনস্বাস্থ্য আর পানিবাহী গাড়ির রিজার্ভার ট্যাংকের জন্য ক্ষতিকর। ফলে ওই স্টেশনটি চালু করা সম্ভব হয়নি।

জানা গেছে, ডোমার উপজেলা শহর থেকে চিলাহাটির দূরত্ব প্রায় ২০ কিলোমিটার। চিলাহটি ও পার্শ্ববর্তী এলাকার প্রায় ৩০ হাজার পরিবারের বসবাস। এসব এলাকায় গত দুই বছরে অন্তত দেড়শ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ কোটি টাকার ওপরে। আগুন নেভাতে গিয়ে দগ্ধ হয়ে মারা গেছেন দুইজন। 

মাহমুদ আল হাসান রাফিন/আরএআর

Link copied