আজকের সর্বশেষ

সোনারগাঁয়ে হেফাজতের আরও ১০ কর্মী গ্রেফতার

Dhaka Post Desk

উপজেলা প্রতিনিধি, সোনারগাঁ (নারায়ণগঞ্জ)

১১ এপ্রিল ২০২১, ১৮:৩৭

সোনারগাঁয়ে হেফাজতের আরও ১০ কর্মী গ্রেফতার

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ উপজেলার রয়েল রিসোর্টে গত ৩ এপ্রিল হেফাজতে ইসলামের কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হক নারীসহ আটকের পর হেফাজতকর্মীদের হামলা-ভাঙচুরের ঘটনায় দায়ের করা ছয় মামলায় আরও ১০ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 

রোববার (১১ এপ্রিল) ভোরে উপজেলার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এ নিয়ে ঘটনার পর থেকে হেফাজতের মোট ৫৬ জন নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করল পুলিশ।

সোনারগাঁ থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাফিজুর রহমান জানান, ভোরে পুলিশের একাধিক টিম সোনারগাঁ উপজেলার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে হেফাজত ইসলামের ১০ কর্মীকে গ্রেফতার করেছে। গ্রেফতাররা হলেন- মো. মিন্টু (২৮), নবীর হোসেন (৩২), কবির হোসেন (৪৫), মাওলানা হাবিবুর রহমান (৩৪), আমজাদ হোসেন (৫৫), যোবায়ের আহম্মেদ (২১), মো. সোহাগ (২১), লোকমান হোসেন (৩২), শহীদুল ইসলাম (৩১) ও মো. হাসান (৩৫)। 

তিনি আরও জানান, ঘটনার দিনের ভিডিও ফুটেজ দেখে এই ১০ জনকে চিহ্নিত করা হয়েছে। তাদেরকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। এ নিয়ে ছয় মামলায় হেফাজতের  মোট ৫৬ জন নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

গত ৩ এপ্রিল হেফাজত ইসলামের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হককে নারীসহ সোনারগাঁয়ের রয়েল রিসোর্টে অবরুদ্ধ করে রাখা হয়। খবর পেয়ে হেফাজতকর্মীরা রয়েল রিসোর্ট ভাঙচুর, থানা পুলিশের গাড়ি ভাঙচুর, উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয়, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি রফিকুল ইসলামের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ও ছাত্রলীগ নেতা সোহাগ রনির বাড়িঘর  ভাঙচুর করে। এসব ঘটনায় সোনারগাঁ থানায় পুলিশ বাদী হয়ে দুটি এবং ক্ষতিগ্রস্ত যুবলীগ ও ছাত্রলীগ নেতারা বাদী হয়ে চারটি মামলা করেন।

মোট ছয়টি মামলায় রোববার পর্যন্ত পুলিশ ৫৬ জন হেফাজতকর্মীকে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়েছে। 

শেখ ফরিদ/আরএআর

Link copied