রায়পুরে নৌকার ভোট করায় ছাত্রলীগ নেতাকে পিটিয়ে জখম

Dhaka Post Desk

জেলা প্রতিনিধি, লক্ষ্মীপুর

১১ ডিসেম্বর ২০২১, ১০:২৭ এএম


রায়পুরে নৌকার ভোট করায় ছাত্রলীগ নেতাকে পিটিয়ে জখম

লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে তৃতীয় ধাপের ইউপি নির্বাচনে নৌকার ভোট করায় সাবেক ছাত্রলীগ নেতা সোহানুর রহমান সোহাগকে পিটিয়ে জখম করার অভিযোগ উঠেছে। শুক্রবার (১০ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় উপজেলার দক্ষিণ চরবংশী ইউনিয়নের মোল্লারহাট বাজারে এ ঘটনা ঘটে।

দক্ষিণ চরবংশী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের বহিষ্কৃত সভাপতি আবদুর রশিদ মোল্লার বিরুদ্ধে আহত সোহাগ এ অভিযোগ করে। আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে স্থানীয়রা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

সোহাগ ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ও ইউপি নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান আবু সালেহ মিন্টু ফরায়েজির পক্ষে কাজ করেছেন।

আহত সোহানুর রহমান সোহাগ জানান, ২৮ নভেম্বরের ইউপি নির্বাচনে তিনি আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থীর ভোট করেছেন। এনিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী রশিদ মোল্লা, তার ছেলে মনির হোসেন মোল্লা ও দিদার হোসেন মোল্লা ক্ষিপ্ত ছিল।

তাদের নির্দেশেই মঞ্জু ও হোসেন মোল্লাসহ ৮-১০ জন ব্যক্তি একা পেয়ে আমার ওপর হামলা চালায়। এ সময় তাকে পিটিয়ে জখম করা হয়। একপর্যায়ে ঘটনাস্থলেই তিনি অচেতন হয়ে পড়ে। তার মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন অংশে জখমের চিহ্ন রয়েছে।

দিদার হোসেন মোল্লা বলেন, সোহাগকে মারধরের বিষয়টি পুলিশ আমাকে জানিয়েছে। কে বা কারা তাকে মেরেছে আমি তা জানি না। এতে আমি কিংবা আমার পরিবারের কেউ জড়িত নয়।

ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবু সালেহ মিন্টু ফরায়েজি বলেন, রশিদ মোল্লার লোকজন সোহাগের ওপর অতর্কিত হামলা চালিয়েছে। তাকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে।

রায়পুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল জলিল বলেন, মারামারির খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়েছি। তবে এ বিষয়ে এখনো কোন অভিযোগ আসেনি। লিখিত অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

প্রসঙ্গত, দলের বিরুদ্ধে গিয়ে ভোট করায় ১৬ নভেম্বর রশিদ মোল্লাকে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি পদ থেকে বহিষ্কার করা হয়। 

হাসান মাহমুদ শাকিল/এমএসআর

Link copied