স্পট মার্কেটে শেয়ার বিক্রির টাকা আজই ওঠানো যাবে

Dhaka Post Desk

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক

১৩ এপ্রিল ২০২১, ০৯:৫৬

স্পট মার্কেটে শেয়ার বিক্রির টাকা আজই ওঠানো যাবে

সরকার ঘোষিত কঠোর বিধিনিষেধের আগে সর্বশেষ লেনদেন হবে আজ (১৩ এপ্রিল)। এদিন সকাল ১০টা থেকে দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত লেনদেন হবে দেশের দুই পুঁজিবাজারে।

‘টি প্লাস টু’ ফর্মুলায় চলা পুঁজিবাজারে আজ (মঙ্গলবার) কোনো বিনিয়োগকারী শেয়ার বিক্রি করে টাকা ওঠাতে পারবে না। তবে এই সময়ে যেসব বিনিয়োগকারীরা ব্লক অর্থাৎ স্পট মার্কেটে শেয়ার বিক্রি করবেন তারা আজকেই টাকা ওঠাতে পারবেন। স্পট মার্কেট হলো- মূল মার্কেটের বাইরে আরও একটি মার্কেট। সোমবার (১২ এপ্রিল) এই মার্কেটে ৪৮ কোটি ৪৯ লাখ ৪৯ হাজার টাকা লেনদেন হয়েছিল।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে ডিএসই ব্রেকার্স অ্যাসোসিয়েশন (ডিবিএর) সাবেক সভাপতি আহমেদ রশিদ লালী ঢাকা পোস্টকে বলেন, সরকার ঘোষিত দ্বিতীয় দফায় কঠোর বিধিনিষেধ শুরু হবে ১৪ এপ্রিল ভোর ৬টা থেকে। চলবে ২১ এপ্রিল পর্যন্ত। এ সময়ে পুঁজিবাজারে আর লেনদেন হবে না। সেই হিসেবে আজ মঙ্গলবার সরকার ঘোষিত বিধিনিষেধের আগের লেনদেনের শেষ সময়। এই সময়ে প্রয়োজন হলে স্পট মার্কেটে শেয়ার বিক্রি করে টাকা ওঠাতে পারবেন বিনিয়োগকারীরা।

কঠোর বিধিনিষেধের সাত দিনে পুঁজিবাজার বন্ধ থাকবে এমন ধারণা করে শেয়ার বিক্রি করলেও বোকামি হবে বলে মন্তব্য করেন বাজার বিশ্লেষক আবু আহমদে। তিনি ঢাকা পোস্টকে বলেন, পুঁজিবাজার বন্ধ হচ্ছে এই আতঙ্কে শেয়ার বিক্রি করার কোনো প্রয়োজন নেই। এই আতঙ্কে যারা শেয়ার বিক্রি করে দেবেন তারা ঠকবেন। তারা বোকামি করবেন।

কঠোর বিধিনিষেধের মধ্যেও লেনদেন চালু রাখার বিষয়ে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) ও স্টক এক্সচেঞ্জ সব ধরনের প্রস্তুতি গ্রহণ করে। কিন্তু ব্যাংকের লেনদেন কার্যক্রম বন্ধ করে দেওয়ায় আগামী এক সপ্তাহ পুঁজিবাজারে লেনদেন হচ্ছে না। কারণ, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুসারে বাংলাদেশ ব্যাংক সব তফসিলি ব্যাংকের লেনদেন কার্যক্রম বন্ধ রেখেছে। ব্যাংকগুলোর লেনদেন বন্ধ থাকায় আগামী ২২ এপ্রিলের আগের সর্বশেষ লেনদেন আজ মঙ্গলবার (১৩ এপ্রিল)। ফলে আজকের দিনে যদি কোনো বিনিয়োগকারী মনে করেন যে শেয়ার বিক্রি করে টাকা ওঠাবেন তাহলে তা পারবেন না।

এর আগের লেনদেন বন্ধ হয়ে যেতে পারে, এমন গুজবে গত ৪ এপ্রিল এবং ১১ এপ্রিল বড় দরপতন হয় পুঁজিবাজারে। ৪ এপ্রিল সূচক পড়ে ১৮১ পয়েন্ট, আর ১১ এপ্রিল পড়ে ৯০ পয়েন্ট।

এমআই/এইচকে

Link copied