বিক্ষোভ নিয়ে বিবিসির খবর : ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূতকে তলব করল ইরান

Dhaka Post Desk

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৯:৪৯ এএম


বিক্ষোভ নিয়ে বিবিসির খবর : ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূতকে তলব করল ইরান

ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়

হিজাব আইন লঙ্ঘনের অপরাধে পুলিশের হাতে আটক মাশা আমিনি নামে এক তরুণীর মৃত্যুর প্রতিবাদে ব্যাপক আকারে বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়েছে ইরানে। ইরান বলছে বিক্ষোভকারীরা ধ্বংসাত্মক ও নাশকতামূলক তৎপরতা চালাচ্ছেন।  

আর বিক্ষোভকারীদের ধ্বংসাত্মক ও নাশকতামূলক তৎপরতা প্রচার না করে তাদেরকে ‘বীর সংগ্রামী’ হিসেবে তুলে ধরার চেষ্টা করছে বিবিসিসহ পশ্চিমা গণমাধ্যমগুলো, এমন অভিযোগ তুলে তেহরানে নিযুক্ত ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূতকে ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে তলব করা হয় গতকাল রোববার।  

ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূতকে তলব করে ইরানের তীব্র প্রতিবাদের কথা জানিয়ে দেন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মহাপরিচালক। তিনি বলেন, ব্রিটিশ চ্যানেলগুলোর তৎপরতাকে ইরানের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে হস্তক্ষেপ হিসেবে বিবেচনা করছে তেহরান। এ সময় ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত ইরানের প্রতিবাদের কথা লন্ডনকে অবহিত করার প্রতিশ্রুতি দেন।  

আরও পড়ুন : বাধ্য করলেই প্রতিবাদ করব, ইরান ইস্যুতে লিখলেন মালালা 

ইরানের অভিযোগ প্রতিবাদকারীরা সরকারি ও বেসরকারি সম্পদ ভাঙচুরসহ নানারকম নাশকতামূলক তৎপরতা চালিয়েছেন। বিক্ষোভকারীরা অ্যাম্বুলেন্স, ফায়ার সার্ভিসের গাড়ি এবং ত্রাণকর্মীদের বহনকারী মাইক্রোবাসে হামলা চালাতেও দ্বিধা করেননি।  হামলায় এখন পর্যন্ত ৬১টি অ্যাম্বুলেন্স ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে এবং চিকিৎসক দলের বেশ কয়েক সদস্য আহত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন।  

পাল্টা মিছিল 
ইরানে চলমান বিক্ষোভের প্রতিবাদে গতকাল তেহরানে একটি পাল্টা মিছিল হয়েছে। এ মিছিল থেকে যুক্তরাষ্ট্র, ইসরায়েলসহ ‘দাঙ্গা’ সৃষ্টিকারীদের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণের আহ্বান জানানো হয়। 

হিজাববিরোধী বিক্ষোভের পাল্টা মিছিল

এ মিছিল থেকে পুলিশসহ ইরানের আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীগুলোর প্রতি তাদের সমর্থন ঘোষণা করে বলা হয়, জনগণের জানমাল রক্ষা করতে নিরাপত্তা বাহিনীগুলো প্রাণপণে তাদের দায়িত্ব পালন করছে। মিছিলকারীরা তেহরানের সড়কগুলোতে দায়িত্ব পালনরত পুলিশ সদস্যদের ফুল দিয়ে অভিনন্দন জানান। 

আরও পড়ুন : ফেসিয়াল রিকগনিশন ব্যবহার করে আন্দোলনকারীদের শনাক্ত করবে ইরান

মিছিল শেষে এক বিবৃতিতে বলা হয়, ‘দাঙ্গাকারীরা’ ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানে হিজাবের বিধিনিষেধ তুলে দেওয়ার দাবি জানাচ্ছে যা কোনোভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়। যেকোনো নারীকে প্রকাশ্য স্থানে হিজাব পরতে হবে। দাঙ্গাবাজ ও দুষ্কৃতকারীদের চিহ্নিত করে তাদের বিচারের আওতায় আনতে হবে।   

সূত্র : পার্স টুডে।  

এনএফ

Link copied