কোটালীপাড়ার কুশলা ও কলাবাড়ি ইউনিয়ন নির্বাচনে বাধা নেই

Dhaka Post Desk

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক

২৮ নভেম্বর ২০২১, ০৪:২২ পিএম


কোটালীপাড়ার কুশলা ও কলাবাড়ি ইউনিয়ন নির্বাচনে বাধা নেই

গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়ায় কুশলা ও কলাবাড়ি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন স্থগিতের আদেশ প্রত্যাহার করে নিয়েছেন হাইকোর্ট। এর ফলে এই দুই ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন হতে বাধা নেই বলে জানিয়েছেন আইনজীবীরা। তবে কোটালীপাড়া উপজেলার হিরণ ইউনিয়নের নির্বাচন ২০২২ সালের ৬ এপ্রিল পর্যন্ত স্থগিত থাকবে বলে আদেশে বলা হয়েছে।

হাইকোর্টের আগের আদেশ সংশোধন করে রোববার (২৮ নভেম্বর) বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মো. মোস্তাফিজুর রহমানের হাইকোর্ট বেঞ্চ এই আদেশ দেন।

আদালতে আবেদনের পক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট পংকজ কুমার কুণ্ডু।

অ্যাডভোকেট পংকজ কুমার কুণ্ডু বলেন, গত ১২ নভেম্বর কোটালীপাড়া উপজেলা নির্বাচন অফিসার একই মেমোতে হিরন, কুশলা ও কলাবাড়ি ইউনিয়নের নির্বাচনের শিডিউল ঘোষণা করেন। পরে হিরন ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনের ৫ বছর পূর্ণ না হওয়ায় নির্বাচন স্থগিত চেয়ে রিট করেন ওই ইউনিয়নের বাসিন্দা মুসা বিশ্বাস। রিটের শুনানি নিয়ে গত ২৩ নভেম্বর কোটালীপাড়ার হিরন, কুশলা ও কলাবাড়ি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের শিডিউল স্থগিত করেন হাইকোর্ট। আইনজীবী বলেন, শুধু হিরন ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন স্থগিতের কথা থাকলেও ভুলে কুশলা ও কলাবাড়ি ইউনিয়নের নির্বাচনও স্থগিত হয়ে যায়। কারণ একই মেমোতে তিনটি ইউনিয়নের নির্বাচনী শিডিউল ঘোষণা করা হয়েছিল।

এদিকে হাইকোর্টের আদেশ পেয়ে গত ২৫ নভেম্বর কোটালীপাড়ায় তিনটি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন স্থগিত ঘোষণা করা হয়।

উপজেলা নির্বাচন অফিসার খায়রুল হাসান বলেন, হাইকোর্টের নিষেধাজ্ঞা জারির কপি হাতে পাওয়ায় হিরণ, কুশলা ও কলাবাড়ি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন স্থগিত করা হয়েছে।

রোববার কুশলা ইউনিয়নের নৌকা প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থী সুলতান মাহমুদ চৌধুরী ও কলাবাড়ি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান প্রার্থী বিজন কুমার বিশ্বাসের পক্ষে অ্যাডভোকেট পংকজ কুমার কুণ্ডু হাইকোর্টের আদেশ সংশোধন চেয়ে আবেদন করেন। আদালত শুনানি শেষে ২৩ নভেম্বরের হাইকোর্টের আদেশ সংশোধন করে দেন।

আগামী ২৬ ডিসেম্বর কোটালীপাড়ায় কুশলা ও কলাবাড়ি ইউনিয়ন পরিষদের ভোটগ্রহণের কথা রয়েছে।

এমএইচডি/জেডএস

Link copied