বাংলাদেশকে ৬০ লাখ ডোজ টিকা দিতে চায় সিনোফার্ম

Dhaka Post Desk

নিজস্ব প্রতিবেদক

১৭ এপ্রিল ২০২১, ১৬:৪৭

বাংলাদেশকে ৬০ লাখ ডোজ টিকা দিতে চায় সিনোফার্ম

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে বাংলাদেশকে ৬০ লাখ ডোজ টিকা দিতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে চীনের ওষুধ প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান সিনোফার্ম। এরইমধ্যে সরকারকে এ সংক্রান্ত একটি প্রস্তাবও দিয়েছে তারা।

শনিবার (১৭ এপ্রিল) ঢাকা পোস্টকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল বাশার মো. খুরশিদ আলম।

তিনি বলেন, চীনের সিনোফার্ম ৬০ লাখ ডোজ টিকা আমাদের ডোনেট করবে বলেছে। আমরা কাগজপত্র প্রস্তুত করছি। পাশাপাশি দেশে অবস্থানরত তাদের নিজেদের লোকজনদের টিকা দিতে চায়, আমরা সে বিষয়টি অনুমোদন দিয়েছি।

কবে নাগাদ টিকা আসতে পারে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমরা আমাদের এক্সটেনশন অব ইন্টারেস্ট তাদের জানিয়েছি। কখন টিকা দেবে, কীভাবে দেবে বাকি সব বিষয় তারা আমাদের জানাবে। আমরা আমাদের দিক থেকে যা যা প্রয়োজন তাদেরকে জানিয়ে দিয়েছি।

খুরশিদ আলম বলেন, চীনের টিকা ছাড়াও রাশিয়ার টিকা আনার বিষয়ে চেষ্টা করা হচ্ছে। রোববার (১৮ এপ্রিল) তাদের সঙ্গে আমাদের একটি মিটিং আছে। সেখানে বিস্তারিত কথা হবে।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের একটি সূত্রে জানা গেছে, ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউট তাদের প্রতিশ্রুতি অনুযায়ী টিকা দিতে না পারায় সরকারের টিকাদান কার্যক্রম চলমান রাখতে বিকল্প উৎস খুঁজতে শুরু করেছে সরকার। সেই প্রচেষ্টার অংশ হিসেবে কয়েকদিন আগে বাংলাদেশকে ৬০ লাখ ডোজ ভ্যাকসিন দেওয়ার প্রস্তাব দিয়েছে চীনের সিনোফার্ম।

এই প্রসঙ্গে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক গণমাধ্যমকে বলেন, চীনের সিনোফার্ম একটি বিশ্বাসযোগ্য সূত্রের মাধ্যমে বাংলাদেশকে করোনার ৬০ লাখ ডোজ বিবিআইবিপি-কোরভি টিকা দেওয়ার প্রস্তাব দিয়েছে। আমরা এই বিষয়টির ওপর গুরুত্ব দিচ্ছি। সমঝোতা চলছে। টিকার মূল্য, কখন দিতে পারবে এবং কতগুলো দিতে পারবে-এই বিষয়গুলো আমরা জানতে চেয়েছি। তারা এই তথ্যগুলো দিলেই আমরা চীনের টিকা কেনার দিকে অগ্রসর হতে পারব।

আজও ১০১ জনের মৃত্যু

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত আরও ১০১ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে পর পর দুই দিন করোনায় শতাধিক মৃত্যুর ঘটনা ঘটল। ভাইরাসটিতে দেশে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ১০ হাজার ২৮৩ জনে।

এ সময় নতুন করে করোনা আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন ৩ হাজার ৪৭৩ জন। এতে মোট শনাক্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৭ লাখ ১৫ হাজার ২৫২ জনে। 

টিআই/জেডএস

Link copied