গোলার ধান খেয়েছে হাতি, এমন অভিযোগে থানায় জিডি

Dhaka Post Desk

নিজস্ব প্রতিবেদক

২৮ নভেম্বর ২০২১, ০৬:০৩ পিএম


গোলার ধান খেয়েছে হাতি, এমন অভিযোগে থানায় জিডি

ভুক্তভোগী কৃষকের গোলা/ছবি ঢাকা পোস্ট

গোলায় রাখা ধান হাতি খেয়েছে এমন অভিযোগে চট্টগ্রামের বোয়ালখালী থানায় একটি জিডি হয়েছে। শনিবার ( ২৭ নভেম্বর ) রাতে চট্টগ্রামের বোয়ালখালী উপজেলার জ্যৈষ্ঠপুরা গ্রামের বাসিন্দা নিপুল কুমার সেন এ জিডি করেন ।

ঢাকা পোস্টকে জিডির বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বোয়ালখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল করিম। তিনি বলেন, গোলায় রাখা ধান হাতি খেয়ে ফেলেছে এমন অভিযোগ করে একটি জিডি করেছেন ওই ব্যক্তি। ধানের ক্ষতি হয়েছে কি না বা কি পরিমাণ ক্ষতি হয়েছে তা তদন্ত করে দেখা হবে ।

নিপুল কুমার সেন চট্টগ্রামের বোয়ালখালী উপজেলার শ্রীপুর-খরণদ্বীপ ইউনিয়নের ৯ নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা। বাড়ির উঠানে গোলায় ধান রাখতেন তিনি ।

নিপুল কুমার সেন ঢাকা পোস্টকে বলেন, আমি ছয় কানি জমিতে ধান চাষ করেছিলাম। এতে যা ধান পেয়েছিলাম তা বাড়ির উঠানে গোলায় রেখেছিলাম। কিন্তু ২৩ নভেম্বর ভোরে হাতি এসে গোলা ভেঙে ধান খেয়ে ফেলেছে। হাতি গোলা ভেঙে ২০ মণের উপরে ধান খেয়েছে। এখন আমি গোলা ঠিক করে ধান ছাদের উপরে তুলে রেখেছি।

তিনি বলেন, আমার পার্শ্ববর্তী বাড়ির লোকজন কাজে যাওয়ার সময় বিষয়টি দেখে চিৎকার দেন। পরে তাদের চিৎকারে হাতিগুলো পাহাড়ের দিকে পালিয়ে যায়।

বোয়ালখালী থানা সূত্রে জানা গেছে, জিডিতে নিপুল কুমার সেন উল্লেখ করেছেন ২৩ নভেম্বর ভোরে দুই-তিনটি বুনো হাতি বসতবাড়িতে প্রবেশ করে আঙিনায় থাকা ধানের গোলা ভেঙে প্রায় ২০ মণ ধান খেয়ে নষ্ট করেছে। যার আনুমানিক মূল্য ৪৫ হাজার টাকা। ধান খেয়ে হাতিগুলো পাহাড়ের দিকে চলে যায়।

চট্টগ্রামের বোয়ালখালী থানার এসআই দিদার হোসেন ঢাকা পোস্টকে বলেন, এ রকম ঘটনায় আগেও জিডি হয়েছে। ফসলের ক্ষতি হলে কৃষকরা উপজেলা কৃষি অফিস থেকে ক্ষতিপূরণ পান। এ জন্য ফসলের ক্ষতি হলে থানায় জিডি করেন তারা। ছয় মাস আগে এক ব্যক্তি ঘর বাড়ি ভেঙে ফেলার অভিযোগে থানায় জিডি করেছিলেন।

কেএম/এসকেডি

Link copied