বেইজিংয়ে ব্রিকস সহযোগিতা ফোরাম অনুষ্ঠিত

Dhaka Post Desk

প্রবাস ডেস্ক

২১ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৩:৪৯ পিএম


বেইজিংয়ে ব্রিকস সহযোগিতা ফোরাম অনুষ্ঠিত

অভিন্ন উন্নয়নের জন্য সংহতি ও সহযোগিতার লক্ষে ‘২০২২ ব্রিকস ফ্রেন্ডশিপ সিটিস এবং স্থানীয় সরকার সহযোগিতা ফোরাম’ সফলভাবে চীনের বেইজিংয়ে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মঙ্গলবার (২০ সেপ্টেম্বর) বিকেলে চাইনিজ পিপলস অ্যাসোসিয়েশন ফর ফ্রেন্ডশিপ উইথ ফরেন কান্ট্রিস, চায়না ইন্টারন্যাশনাল ফ্রেন্ডশিপ সিটিস অ্যাসোসিয়েশন, পিপলস গভর্নমেন্ট অব ফুচিয়ান প্রভিন্স, শিয়ামেন সিটি পিপলস গভর্নমেন্ট যৌথভাবে ফোরামটির আয়োজন করে।

বিশ্বব্যাপী উন্নয়নের একটি নতুন যুগে উচ্চমানের অংশীদারিত্ব গঠনে ব্রিকস দেশগুলোর জন্য বন্ধুত্বপূর্ণ বিনিময় এবং বাস্তবসম্মত সহযোগিতা বাড়াতে পাঁচটি দেশের নেতারা অনলাইন এবং অফলাইনে এই ফোরামে মিলিত হয়।

ফোরামটি সঞ্চলনা করেন চাইনিজ পিপলস অ্যাসোসিয়েশন ফর ফ্রেন্ডশিপ উইথ ফরেন কান্ট্রিসের ভাইস প্রেসিডেন্ট ইউয়ান মিনতাও। ন্যাশনাল পিপলস কংগ্রেসের স্ট্যান্ডিং কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান শেন ইউয়ে ইউয়ে ফোরামের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দেন এবং স্বাগত বক্তব্য রাখেন।

শেন ইউয়ে ইউয়ে বলেন, ব্রিকস দেশগুলোর স্থানীয় সরকারকে আন্তর্জাতিক সিস্টার সিটি এবং স্থানীয় সহযোগিতার সুবিধাজনক ভূমিকা আরও ভালোভাবে পালন করা উচিত। বিশ্বব্যাপী সুরক্ষা এবং বৈশ্বিক উন্নয়ন উদ্যোগের বাস্তবায়নকে আরও উন্নীত করা উচিত। বৈশ্বিক ঝুঁকি এবং চ্যালেঞ্জ যৌথভাবে মোকাবেলায় সংহতি ও সহযোগিতার অংশীদার হওয়া উচিত। আমরা ব্রিকস সহযোগিতার টেকসই এবং উচ্চমানের উন্নয়ন প্রচার এবং জনগণের মধ্যে বন্ধুত্বের সামাজিক ও জনমতের ভিত্তিকে সুসংহত করব।

এছাড়াও বক্তব্য রাখেন চাইনিজ পিপলস অ্যাসোসিয়েশন ফর ফ্রেন্ডশিপ উইথ ফরেন কান্ট্রিসের সভাপতি অ্যাম্বাসেডর লিন সংথিয়ান, সোসাইটি অফ দ্য রুশ-চীনা ফ্রেন্ডশিপের চেয়ারম্যান ইভান মেলনিকভ, চীনের ফুচিয়ান প্রদেশের গভর্নর ঝাও লং, চীনে দক্ষিণ আফ্রিকার রাষ্ট্রদূত সিয়াবোঙ্গা সি. কুয়েল, চীনে জাতিসংঘের আবাসিক সমন্বয়কারী সিদ্ধার্থ চ্যাটার্জি আরও অনেক বিশিষ্ট অতিথি।

লিন সংথিয়ান বলেন, ব্রিকস ফ্রেন্ডশিপ সিটিস অ্যান্ড লোকাল গভর্নমেন্ট কো-অপারেশন ফোরাম ২০১১ সালে চাইনিজ পিপলস অ্যাসোসিয়েশন ফর ফ্রেন্ডশিপ উইথ ফরেন কান্ট্রিসের মাধ্যমে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল। যার মাধ্যমে ব্রিকস দেশগুলোর স্থানীয় সরকারগুলোর মধ্যে বোঝাপড়া বাড়ানো, সহযোগিতা গভীর করা, ভালো সম্পর্ক গড়া, একে অপরের কাছ থেকে শেখা, এবং ব্রিকস সিস্টার সিটি ও স্থানীয় সরকারগুলোর মধ্যে অভিন্ন উন্নয়ন বৃদ্ধি করা।

ফোরামে ব্রিকস দেশগুলোর প্রতিনিধিরা ফ্রেন্ডশিপ সিটি কো-অপারেশন অ্যান্ড গ্রিন ট্রানজিশন ডেভেলপমেন্ট, এবং ওপেন ইনোভেশন অ্যান্ড ডিজিটাল ডেভেলপমেন্ট এই দুইটি বিষয়ে প্যানেল আলোচনায় অংশ নেন।

ব্রিকসের পাঁচটি দেশের ১২৩টি প্রাদেশিক ও পৌর সরকারের প্রতিনিধি, ৮টি বন্ধুত্বপূর্ণ সংস্থা, চীনের প্রাসঙ্গিক দেশগুলোর কূটনৈতিক দূত এবং প্রতিনিধিসহ প্রায় ২৫০ জন এই ফোরামে অংশ নেন।

এমএ

Link copied