ভারত নিষিদ্ধ, খুশি সাবেক অধিনায়ক

Dhaka Post Desk

স্পোর্টস ডেস্ক

১৬ আগস্ট ২০২২, ০৪:২৭ পিএম


ভারত নিষিদ্ধ, খুশি সাবেক অধিনায়ক

আন্তর্জাতিক ফুটবলে নিষিদ্ধ ভারত। দেশটিকে অনির্দিষ্টকালের জন্য নিষিদ্ধ করেছে বিশ্ব ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ফিফা। ফুটবলীয় কার্যক্রমে তৃতীয় পক্ষের প্রভাব খাটানোর অভিযোগে এই নিষেধাজ্ঞার মুখে পড়েছে অল ইন্ডিয়া ফুটবল ফেডারেশন (এআইএফএফ)। আর খবরে কীনা খুশি ভারতেরই সাবেক অধিনায়ক, যিনি এক নামে পরিচিত ভাইচুং ভুটিয়া।

ভারতীয় ফুটবলের জন্য দুঃসময় হলেও হলেও এটি দেশটির ফুটবলের জন্য ভাল হয়েছে বলে মনে করছেন ভুটিয়া। তার মতে ভারতীয় ফুটবল প্রশাসনের পুরোপুরি বদলে ফেলার এটাই বড় সুযোগ।

ফিফার নিষেধাজ্ঞার পর ভাইচুং ভুটিয়া বলছিলেন, ‘দেখুন, ভারতীয় ফুটবলকে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে নির্বাসিত করার ঘোষণা অত্যন্ত দুর্ভাগ্যজনক। খুব কঠোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে ফিফা। কিন্তু এটার একটা ভাল দিকও রয়েছে। আমরা ফুটবল প্রশাসনকে ফের ঠিক পথে ফেরানোর সুযোগ পেয়েছি। তার জন্য ফুটবল ফেডারেশন, সব রাজ্যের ফুটবল সংস্থাগুলোকে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করতে হবে।’

তবে ফিফার এমন সিদ্ধান্তে হতবাক ভারতের সাবেক ফুটবলার সাবির আলি। বলছিলেন, ‘এটি ভারতীয় ফুটবলের জন্য খুব খারাপ। আশা করছি এই নির্বাসন তাড়াতাড়ি উঠে যাবে। ভারতে নারীদের অনূর্ধ্ব-১৭ ফুটবল বিশ্বকাপ হওয়ার কথা। আশা করছি সেই প্রতিযোগিতা হবে।’

মঙ্গলবার (১৬ আগস্ট) প্রথম প্রহরে আনুষ্ঠানিকভাবে বিবৃতি দিয়ে নিষেধাজ্ঞার খবর জানিয়েছে ফিফা। বিবৃতিতে সংস্থাটি বলেছে, ‘ব্যুরো অব ফিফা কাউন্সিল সর্বসম্মতভাবে অল ইন্ডিয়া ফুটবল ফেডারেশনকে নিষিদ্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কারণ এই সংস্থায় তৃতীয় পক্ষের অনুচিত প্রভাবের ফলে ফিফা সনদের পরিস্কার লঙ্ঘন হয়েছে।’

মেয়াদ শেষ হয়ে যাওয়ার পরেও ফেডারেশনের সভাপতি পদে বসেছিলেন প্রফুল্ল প্যাটেল। এই নিয়ে সুপ্রিম কোর্টে মামলা হয়। দেশের সর্বোচ্চ আদালত এই বছরের মে মাসে ফেডারেশনের কার্যকরী কমিটিকে ভেঙে দিয়েছে। ভারতীয় ফুটবলের দায়িত্ব তিন সদস্যের কমিটি অব অ্যাডমিনিস্ট্রেটর্সকে (সিওএ) করেছে। বলা হয়েছে যত দ্রুত সম্ভব ফেডারেশনের নির্বাচন করতে হবে। এমন সময়ে এসেছে এই নিষেধাজ্ঞা।

নিষেধাজ্ঞার ফলে ভারতের জাতীয় দল, ইন্ডিয়ান সুপার লিগ (আইএসএল) এবং আই-লিগ ক্লাবগুলো ফিফা অনুমোদিত কোনো প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে পারবে না।

এটি

Link copied