সূর্যোদয়ের দেশে টোকিও অলিম্পিক

Dhaka Post Desk

আনওয়ার আহমেদ মুন 

২২ জুলাই ২০২১, ০৯:১৭ এএম


সূর্যোদয়ের দেশে টোকিও অলিম্পিক

সূর্যোদয়ের দেশ জাপানে পর্দা উন্মোচন হতে যাচ্ছে ‘গ্রেটেস্ট শো অন আর্থ’ -এর ৩২তম গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিকের। জাপানের টোকিওতে ২০২০ সালের ২৪ জুলাই অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল এ গেমস। কিন্তু করোনাভাইরাসের জেরে ইভেন্ট এক বছরের জন্য স্থগিত করে দেওয়া হয়। ২০২১ সালে অনুষ্ঠিত হলেও একে ডাকা হবে ‘টোকিও ২০২০’ বলেই। শুধু এক বছর পরে অনুষ্ঠিত হচ্ছে এই যা। ইতিহাসে এবারই প্রথম যুদ্ধাবস্থা ছাড়া অলিম্পিক গেমস স্থগিত হয়েছে। 

শঙ্কা দূরে ঠেলে ২৩ জুলাই শুক্রবার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনী অনুষ্ঠান হবে। যদিও ফুকুশিমায় দুই দিন আগে সফটবল অ্যাকশন শুরু হবে। সাঁতারের কার্যক্রম ২৪ শে জুলাই থেকে শুরু হবে।

টোকিও অলিম্পিকে অংশগ্রহণ করছে ২০৬ জাতীয় অলিম্পিক দল ও আইওসি শরণার্থী অলিম্পিক দল। ৩২ আন্তর্জাতিক ফেডারেশন যুক্ত থাকছে এবারের অলিম্পিকে। ৩৩ ক্রীড়ার সাথে ১৮ টি মিশ্র ও উন্মুক্ত ইভেন্ট সহ ৩৩৯ পদকের জন্য লড়াইয়ে নামবেন ১১,০৯০ অ্যাথলিট। অলিম্পিক গেমস টোকিওতে লিঙ্গ ভারসাম্যে বজায় থাকবে। প্রায় ৪৮.৮ শতাংশ নারী অংশ নিচ্ছেন এবারের গেমসে। টোকিও গেমসের জন্য ৪২ টি প্রতিযোগিতার স্থান, স্টেডিয়াম নির্ধারণ করা হয়েছে। 

মাসকট ‘মিরাইতোয়া’

৩২তম গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিক মাসকটের নাম দেয়া হয়েছে মিরাইতোয়া। জাপানী শব্দ মিরাইতোয়া ‘মিরাই’ ও ‘তোয়া’ শব্দের সমন্বয়ে গঠিত হয়েছে। মিরাই অর্থ ভবিষ্যৎ এবং তোয়া অর্থ চিরস্থায়ী। মিরাইতোয়া এর অর্থ চিরস্থায়ী ভবিষ্যৎ। মিরাইতোয়া এমন একটি চরিত্র যেটি অতীত ঐতিহ্যের সাথে বর্তমান উদ্ভাবনের সংযোগের প্রতিমূর্তি। অন্যদিকে সোমেতি চেরিফুলের সুবাস মিশ্রিত অতিপ্রাকৃতিক শক্তির নির্দেশক। জাপানের ১৬ হাজার ৭৬৯টি স্কুলের শিশুদের ভোটে নির্বাচিত করা হয়েছে মাসকট। আয়োজকরা মনে করেন বন্ধুত্বের আহবানে সবার মাঝেই সাড়া ফেলবে নীল-সাদা খোপ কাটা এ মাসকটটি।

টোকিও অলিম্পিক আয়োজক কমিটির প্রেসিডেন্ট ইয়োশিরো মোরি বলেন, এ মাসকট সবার বন্ধু। ওরা শিশুর মত নিষ্পাপ। নতুন নতুন বেশকিছু ইভেন্ট যোগ হচ্ছে টোকিওতে। আশা করছি এ মাসকটও সবার ভাল লাগবে।

জাপানে এবাই প্রথম নয়! 

৩২তম গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিয়াক গেমস জাপানের টোকিওতে অনুষ্ঠিত হতে চলেছে। ২০১৩ সালের সেপ্টেম্বরে অনুষ্ঠিত আইওসি ভোটে ইস্তাম্বুল ও মাদ্রিদকে হারিয়ে টোকিওকে ২০২০ গেমস আয়োজনের দায়িত্ব দেয়া হয়। দ্বিতীয়বারের মতো টোকিওতে অলিম্পিক গেমস অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। এর আগে ১৯৬৪ সালে অলিম্পিক আসর বসেছিল টোকিওতে। যা ছিল এশিয়ায় প্রথম অলিম্পিক আয়োজন।

এছাড়াও ১৯৭২ এবং ১৯৯৮ সালে দুটি শীতকালীন অলিম্পিক অনুষ্ঠিত হয়েছিল জাপানে। এবার গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিকের পাশাপাশি শীতকালীন অলিম্পিকের দায়িত্বও দেয়া হয়েছে টোকিওকে। 

নতুন খেলা বা ইভেন্ট 

আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটি গেমসে কোন কোন খেলা থাকবে সেটা বেছে নেন। কমিটি বিশ্বব্যাপী জনপ্রিয় খেলাধুলার সন্ধান করেন এবং বিভিন্ন অঞ্চলকে এমন কয়েকটি খেলা দেওয়ার চেষ্টা করেন যাতে তাঁরা সাফল্য পেতে পারেন। 

১৩ বছর পর ফিরে এসেছে বেসবল এবং সফটবল। নতুন স্পোর্টস হিসেবে যুক্ত হয়েছে ক্যারাটে, সার্ফিং, স্পোর্ট ক্লাইম্বিং এবং স্কেটবোর্ডিং। থ্রি-অন-থ্রি বাস্কেটবল এবং ম্যাডিসন সাইক্লিং, দুই ব্যক্তির দল ইভেন্ট সহ কয়েকটি নতুন ইভেন্ট ঐতিহ্যশালী ক্রীড়াগুলিতে যুক্ত হয়েছে। 

লিঙ্গ বৈষম্য কয়েক দশক ধরে কমিটির প্রাথমিক উদ্বেগ হিসাবে দেখা দিয়েছে। বক্সিং এবং কুস্তির মতো ক্রীড়াতে এই শতাব্দীতে মহিলাদেরও যুক্ত করা হয়েছে। বেশ কয়েকটি ক্রীড়া ট্র্যাক, সাঁতার, ট্রায়াথলন, তীরন্দাজ এবং টেবিল টেনিস সহ মিশ্র লিঙ্গ দলগুলির জন্য রিলে বা অন্যান্য প্রতিযোগিতা থাকবে।

শরণার্থী অলিম্পিক দল 

টোকিও অলিম্পিকের জন্য ২৯ সদস্যের শরণার্থী অ্যাথলেট দল ঘোষণা করেছে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটি (আইওসি)। এই অ্যাথলেটরা মোট ১২টি ইভেন্টে বিভিন্ন দেশের প্রতিদ্ব›দ্বীদের সঙ্গে লড়াই করবেন। তবে নিজেরা কোন দেশের পতাকা বা পরিচয় বহন করবেন না। ফরাসি ভাষায় ‘শরণার্থী অলিম্পিক দল’-এর আদ্যক্ষরে তাদের চিহ্নিত করা হবে ইংরেজি ‘ইওআর’ বর্ণমালা দিয়ে। খেলোয়াড়দের স্বাস্থ্য নিরাপত্তার কারণ দেখিয়ে দেশগুলোর মধ্যে এবারের আয়োজনে অংশ নিচ্ছে না উত্তর কোরিয়া। 

এটি

Link copied