দাবি আদায়ে এক কাতারে ছাত্রলীগ-ছাত্র ইউনিয়ন-ছাত্র অধিকার

Dhaka Post Desk

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক

 ঢাবি

২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৯:১৮ পিএম


দাবি আদায়ে এক কাতারে ছাত্রলীগ-ছাত্র ইউনিয়ন-ছাত্র অধিকার

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) আইন অনুষদের কাজী মোতাহার হোসেন ভবনে ক্যান্টিন স্থাপনের দাবিতে মানববন্ধন করেছে আইন অনুষদের শিক্ষার্থীরা।

মঙ্গলবার (২৭ সেপ্টেম্বর) দুপুরে কাজী মোতাহার হোসেন ভবনের সামনের রাস্তায় এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। আইন বিভাগের ৪৮ ব্যাচের শিক্ষার্থী সাখাওয়াত জাকারিয়ার সঞ্চালনায় সাধারণ পাশাপাশি মানববন্ধনে ছাত্রলীগ, ছাত্র ইউনিয়ন ও ছাত্র অধিকার পরিষদের আইন অনুষদের নেতাকর্মীরা অংশ নেন।

এ সময় বক্তারা ক্যান্টিন না থাকায় সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত ক্লাস করতে ও অন্যান্য ক্যান্টিনে যেতে যেসব সমস্যার মুখোমুখি হন তা বর্ণনা করেন এবং ক্যান্টিন সমস্যার আশু সমাধানের দাবি জানান‍।

ঢাবি ছাত্র অধিকার পরিষদের সভাপতি ও আইন বিভাগের ৪৩ ব্যাচের শিক্ষার্থী আখতার হোসেন‍ বলেন, ক্যান্টিন না থাকায় শিক্ষার্থীদের এক ক্যান্টিন থেকে অন্য ক্যান্টিনে দৌড়াদৌড়ি করতে হয়‍। কেবল পেট পুরার জন্য ক্যান্টিনের কথা বলছি না; কিন্তু খাবারের সঙ্গে পড়াশোনায় মনোযোগ দেওয়ার একটা ব্যাপার তো অবশ্যই আছে‍। প্রশাসন কোন বাধার কারণে ক্যান্টিন দিতে অপারগ হয়, আমাদের বলুক‍। প্রয়োজনে আমরা শিক্ষার্থীরা নিজেরা ক্যান্টিন দেব।

আইন অনুষদ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ও আইন বিভাগের ৪৫ ব্যাচের শিক্ষার্থী সুজয় বসু বলেন, এই দাবি কাজী মোতাহের ভবনের সকল শিক্ষার্থীর‍। ম্যাথ ক্যান্টিনে খেতে গিয়ে ইতিপূর্বে অনেকগুলো অপ্রীতিকর ঘটনার সাক্ষী হয়েছে আইনের শিক্ষার্থীরা। প্রশাসনের উচিত দ্রুত সকল স্টেকহোল্ডারদের সমন্বয় করে ক্যান্টিন স্থাপন করা‍।

ছাত্র ইউনিয়ন, ঢাবি সংসদের আহ্বায়ক ও ৪৬ ব্যাচের শিক্ষার্থী কাজি রাকিব‍ হোসাইন বলেন, কাজী মোতাহারে ক্যান্টিনের দাবি দীর্ঘদিনের‍। এখানে ক্যান্টিন না থাকায় মধ্যাহ্নভোজন বিরতিতে শিক্ষার্থীদের বেশ বিপাকে পড়তে হয়‍। ক্যান্টিন স্থাপনে আইন অনুষদের ডিনসহ অন্যান্য সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের দ্রুত এগিয়ে আসতে আহ্বান জানাই‍।

মানববন্ধনে আইন বিভাগের শিক্ষার্থী সাখাওয়াত জাকারিয়া বলেন, আইন অনুষদ স্বতন্ত্র অথচ এখানে কোনো ক্যান্টিন নেই। আমাদের ক্যান্টিনের দাবির বিষয়ে বলা হয় যে, এখানে পর্যাপ্ত জায়গার অভাব। তারা জায়গার অভাবের কথা বলে অথচ আমরা পর্যাপ্ত জায়গা দেখি। আবার শোনা যায় একজন ডিনের মনঃপুত হয়নি বলে এটা ঝুলে আছে। আমরা বলতে চাই, আইন অনুষদ কারো বাপের সম্পত্তি নয়।

এইচআর/এসকেডি

Link copied