বেরোবি শিক্ষক-শিক্ষার্থীকে ছুরিকাঘাতের প্রতিবাদে অবরোধ

Dhaka Post Desk

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক, বেরোবি

১০ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৬:৫১ পিএম


বেরোবি শিক্ষক-শিক্ষার্থীকে ছুরিকাঘাতের প্রতিবাদে অবরোধ

গভীর রাতে শিক্ষার্থী পরাগ মাহমুদ এবং ভোরে শিক্ষক মমনিরুজ্জামান ছুরিকাঘাত হওয়ার প্রতিবাদে রংপুর-কুরিগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ করেছেন বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের (বেরোবি) শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।

শুক্রবার (১০ সেপ্টেম্বর) বিকেল সাড়ে ৪টায় প্রধান ফটকের সামনে মানববন্ধন করার পর সাড়ে পাঁচটায় বিশ্ববিদ্যালয়ের ১ নম্বর ফটকের সামনে মহাসড়ক অবরোধ করা হয়। সন্ধ্যায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত সড়কে যানজট ছিল।

এ সময় শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা আল্টিমেটাম দেন দুর্বৃত্তদের শাস্তির আওতায় না আনা পর্যন্ত মহাসড়ক অবরোধ তোলা হবে না। শিক্ষার্থীরা স্লোগান দেন, আমার ভাই আহত কেন? প্রশাসন জবাব চাই? আমার শিক্ষক আহত কেন? প্রশাসন জবাব চাই?

Dhaka Post

জেন্ডার অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজ বিভাগের শিক্ষার্থী আবির রহমান বলেন, দুর্বৃত্তদের কারণে ক্যাম্পাসসহ পার্শ্ববর্তী এলাকা অরক্ষিত হয়ে পড়েছে। কিন্তু প্রশাসন থেকে তেমন কোনো ব্যবস্থা নেওয়া হয় নাই। যতক্ষণ পর্যন্ত কোনো ব্যবস্থা করা হবে না ততক্ষণ অবরোধ চালিয়ে যাব।

বিশ্ববিদ্যালয়ের পুলিশ ফাঁড়ির এসআই ইজার আলী বলেন, ইতোমধ্যে এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অবরোধের বিষয়ে জানতে চাইলে বলেন, এ বিষয়ে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, ৯ সেপ্টেম্বর রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে জেন্ডার অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজ বিভাগের শিক্ষার্থী পরাগ মাহমুদ আহত হয় এবং সকালে জগিং করতে বের হলে রংপুরের লালবাগে ইতিহাস ও প্রত্নতত্ত্ব বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মনিরুজ্জামান দুর্বৃত্তদের হামলার শিকার হয়।

দুইজনকেই রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে চিকিৎসকরা পরাগের হাত সার্জারি করাতে অপারগতা জানায়। পরে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকার পঙ্গু হাআসপাতালে ভর্তি করা হয়। শিক্ষক মনিরুজ্জামান রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এমএসআর

Link copied