পদায়নের খুশিতে হাসপাতালে চিকিৎসকের ভূড়িভোজের আয়োজন

Dhaka Post Desk

জেলা প্রতিনিধি, ব্রাহ্মণবাড়িয়া

১১ আগস্ট ২০২২, ০৪:৫০ পিএম


পদায়নের খুশিতে হাসপাতালে চিকিৎসকের ভূড়িভোজের আয়োজন

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালে স্বাস্থ্য সেবা কার্যক্রম বন্ধ রেখে ভূড়িভোজের আয়োজন করার অভিযোগ উঠেছে। হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক ফাইজুর রহমানের পদায়নে এমন আয়োজন করা হয় বলে জানা গেছে। 

হাসপাতালের দ্বিতীয় তলায় বহির্বিভাগের বারান্দায় এই ভূড়িভোজের জন্য নির্ধারিত সময়ের প্রায় দুই ঘণ্টা আগেই চিকিৎসকদের চেম্বারগুলো বন্ধ করে দেওয়া হয়। এতে বন্ধ থাকে সেবা কার্যক্রম। বিষয়টি নিয়ে সমালোচনা শুরু হয়েছে।

হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, সম্প্রতি ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালে আবাসিক চিকিৎসক হিসেবে পদায়ন হয় ফাইজুর রহমানের। তিনি আগে একই হাসপাতালে মেডিকেল অফিসার হিসেবে কর্মরত ছিলেন। আবাসিক চিকিৎসক হিসেবে পদায়নের আনন্দে বৃহস্পতিবার হাসপাতালের সকল চিকিৎসক ও স্টাফদের জন্য ভূড়িভোজের আয়োজন করেন ডা. ফাইজুর। এজন্য দুপুর ১২টা থেকেই হাসপাতালের দ্বিতীয় তলায় চিকিৎসকদের চেম্বার বন্ধ করে বারান্দায় টেবিল-চেয়ার সাজানো শুরু হয়। এরপর দুপুর ১টা থেকে চলে খাওয়া-দাওয়া।

ভূড়িভোজের এ আয়োজনে অংশ নেন হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. মো. ওয়াহিদুজ্জামান, জেলা বিএমএ নেতা ডা. আবু সাঈদ ও সিভিল সার্জন অফিসের মেডিকেল অফিসার মাহমুদুল হকসহ হাসপাতালের চিকিৎসক এবং স্টাফরা।

বহির্বিভাগে সকাল ৮টা থেকে দুপুর আড়াইটা পর্যন্ত রোগী দেখার নিয়ম থাকলেও সেটি ব্যতয় হয়েছে খাবারের আয়োজনের কারণে।
তবে পদায়নের খুশিতে স্বাস্থ্য সেবা বন্ধ রেখে এমন আয়োজনের বিষয়ে বক্তব্য জানতে চাইলে ডা. ফাইজুর রহমান কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি। উল্টো তিনি সাংবাদিকদের প্রতিবেদন না করার জন্য ম্যানেজের চেষ্টা করেন।

তবে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা. মো. ওয়াহিদুজ্জামান জানান, এ ধরনের আয়োজন আগেও হাসপাতালে হয়েছে। তবে তিনি আয়োজনের সঙ্গে সম্পৃক্ত ছিলেন না। তাছাড়া খাবার যখন শুরু হয়, তখন হাসপাতালে রোগী ছিল না। ফলে সেবা ব্যহত হয়নি।

এমএএস

Link copied