গাঁজন প্রক্রিয়ায় তৈরি হয় নেত্রকোনার চ্যাপা শুঁটকি

Dhaka Post Desk

জেলা প্রতিনিধি, নেত্রকোনা

০৭ মার্চ ২০২১, ০৯:৫০ পিএম


গাঁজন প্রক্রিয়ায় তৈরি হয় নেত্রকোনার চ্যাপা শুঁটকি

নেত্রকোনার মানুষের কাছে চ্যাপা শুঁটকি খুবই প্রিয়। জেলাবাসীর কাছে চ্যাপা শুঁটকি মূলত হিদল নামে পরিচিত। এ অঞ্চলে হিদলের ব্যাপক চাহিদা রয়েছে। তবে স্থানীয় চাহিদা মিটিয়েও ঢাকাসহ দেশের বিভিন্নস্থানে চ্যাপা শুঁটকি রফতানি করে জীবিকা নির্বাহ করছেন নেত্রকোনার কয়েক শতাধিক শুঁটকি ব্যবসায়ী।

হাওরাঞ্চল হিসেবে পরিচিত নেত্রকোনার প্রতিটি উপজেলায় কম-বেশি চ্যাপা শুঁটকি উৎপাদন করা হয়ে থাকে। তবে সবচেয়ে বেশি উৎপাদন করা হয় জেলার বারহাট্টা উপজেলায়।

বারহাট্টা উপজেলার চরসিংধা গ্রামের চ্যাপা শুটকি ব্যবসায়ী সবুজ মিয়া ও ইদ্রিস মিয়া জানান, তারা চ্যাপা শুঁটকির একটি বড় অংশ সনাতন পদ্ধতিতে মাছ প্রক্রিয়াকরণ করে জীবিকা নির্বাহ করেন। তারা এই চ্যাপা শুঁটকি ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন প্রান্তে বিক্রি করে থাকেন তারা।

শুঁটকি উৎপাদনকারী সবুজ মিয়া জানান, তারা সনাতন পদ্ধতির গাঁজন প্রক্রিয়ায় চ্যাপা শুঁটকি প্রস্তুত করে থাকেন। চ্যাপা শুঁটকির কাঁচামাল তথা পুঁটিমাছ বাছাইকালে সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্বন করা হয়। 

নষ্ট, পঁচা বা আংশিক পঁচা মাছ ব্যবহার করা হয় না। সদ্য আহরণ করা মাছ সংগ্রহ এবং সংগ্রহ করা মাছকে যথাযথভাবে পরিচর্যা করে বাছাইকৃত মাছ পরিষ্কার পানি দিয়ে ভালোভাবে ধুয়ে পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন অবস্থায় যত তাড়াতাড়ি সম্ভব শুঁটকিকরণের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়।

তিনি বলেন, প্রশিক্ষণের মাধ্যমে আমাদের শেখানো হয়েছে কীভাবে ভালো মানের চ্যাপা শুঁটকি উৎপাদন করতে হবে। এজন্য প্রথমে মাটির মটকা তেল দিয়ে ভিজিয়ে ভালোভাবে প্রস্তুত করতে হয়। পুঁটি মাছ থেকে উৎপাদিত তেলে অনেক ময়লা ও বাড়তি আর্দ্রতা থাকে তাই প্রাপ্ত তেল ভালোভাবে ছেঁকে নিতে হয়। ছেঁকে নেয়া তেল পুনরায় চুলায় ভালোভাবে ফুটিয়ে বা গরম করে ব্যবহার করতে হয়। এতে তেলে থাকা বাড়তি আর্দ্রতা চলে যায় এবং জীবাণুও মুক্ত হয়। তেলে ভেজানো মাটির মটকাতে ভালোভাবে পরিষ্কার হাত দিয়ে চেপে চেপে ভরতে হয়। মটকাতে শুঁটকি ভরা হয়ে গেলে মটকার মুখে চূর্ণ করা শুঁটকি মাছ ও মাছের তেল দিয়ে প্রস্তুতকৃত পেস্ট দিয়ে প্রথমে একটি স্তর তৈরি করতে হয়। স্তরের উপরে মটকার মুখে সমানভাবে একটি পলিথিন কাগজ দিয়ে ঢেকে দিয়ে রেখে দিতে হয়। এভাবে কিছুদিন রেখে দেয়ার পর মটকায় চ্যাপা শুঁটকি তৈরি হয় এবং তারপর তা বাজারজাত করা হয়।

স্থানীয় সিংধা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শাহ মাহাবুব মোর্শেদ কাঞ্চন ঢাকা পোস্টকে বলেন, আমার এলাকার চ্যাপা শুঁটকির একটা সুনাম রয়েছে। এখানকার বেশ কয়েকটি গ্রামে অনেকেই সনাতন পদ্ধতিতে চ্যাপা শুঁটকি উৎপাদন করে জীবিকা নির্বাহ করে আসছে এবং এসব শুঁটকি স্থানীয় চাহিদা পূরণ করে ঢাকাসহ বিভিন্নস্থানে যাচ্ছে।

এ বিষয়ে কথা হলে বারহাট্টা উপজেলার সিনিয়র মৎস কর্মকর্তা তানভীর আহম্মেদ জানান, আমরা এখানকার চ্যাপা শুঁটকি উৎপাদনকারীদের প্রশিক্ষণ প্রদান করে আসছি। যাতে করে সঠিক নিয়ম মেনে স্বাস্থ্যসম্মত শুঁটকি তারা উৎপাদন করতে পারেন। সনাতন বা মটকা পদ্ধতিতে কীভাবে উন্নতমানের চ্যাপা শুঁটকি উৎপাদন করা সম্ভব- সবই প্রশিক্ষণের মাধ্যমে তাদের শেখানো হয়েছে।

মো. জিয়াউর রহমান/এমএএস

 

Link copied