তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রীকে অপহরণ-ধর্ষণের দায়ে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

Dhaka Post Desk

জেলা প্রতিনিধি, রাজবাড়ী

১৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:৪৯ পিএম


তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রীকে অপহরণ-ধর্ষণের দায়ে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

প্রতীকী

রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলায় তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রীকে (১২) অপহরণ ও ধর্ষণ মামলার প্রধান আসামি মনির খানকে (৩৭) যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একইসঙ্গে তাকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে ছয় মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। 

মঙ্গলবার (১৪ সেপ্টেম্বর) দুপুরে রাজবাড়ী নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক শারমীন নিগার এ রায় দেন। রায় ঘোষণার সময় দণ্ডপ্রাপ্ত মনির আদালতে অনুপস্থিত ছিলেন।  মামলার অপর দুই আসামিকে খালাস দেওয়া হয়েছে। 

যাবজ্জীবন দণ্ডপ্রাপ্ত মনির খান শরীয়তপুরের নড়িয়া উপজেলার শুভগ্রামের মৃত আমির হোসেনের ছেলে।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, ২০১৬ সা‌লের ১০ ফেব্রুয়ারি রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার বাহাদুরপুর থেকে তৃতীয় শ্রেণির ওই ছাত্রীকে আনোয়ারা বেগম ও কল্পনা বেগমের সহায়তায় অপহরণ করেন মনির খান। অপহর‌ণের পর ম‌নি‌র স্বজনদের সহ‌যোগিতায় ঢাকা, শরীয়তপুরসহ বিভিন্ন জেলায় তাকে নিয়ে আটকে রাখেন। এক বছরেরও বেশি সময় পর ২০১৭ সা‌লের ১৩ মে অপহৃত শিশুটি ফোন ক‌রে তার প‌রিবা‌রের কা‌ছে সব জানায়। ওইদিনই তার মা বাদী হ‌য়ে গোয়ালন্দ ঘাট থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা ক‌রেন। পরবর্তীতে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মনিরকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দেন। ১০ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে বিচারক এ রায় দেন। 

নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাডভোকেট উমা সেন ঢাকা পোস্টকে বলেন, রাজবাড়ী নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক শারমিন নিগার এ রায় দেন। দণ্ডপ্রাপ্ত মনির খান এখনো পলাতক রয়েছেন।

মীর সামসুজ্জামান/আরএআর

Link copied