হাসপাতালে গৃহবধূর লাশ রেখে পালাল স্বামীর পরিবার 

Dhaka Post Desk

জেলা প্রতিনিধি, ঠাকুরগাঁও 

২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:৫৮ এএম


হাসপাতালে গৃহবধূর লাশ রেখে পালাল স্বামীর পরিবার 

ঠাকুরগাঁও সদর হাসপাতালে রিমু আক্তার নামের এক গৃহবধূর মরদেহ হাসপাতালে রেখে স্বামীর পরিবার পালিয়েছে বলে জানা গেছে। সোমবার (২৭ সেপ্টেম্বর) শহরের শান্তিনগর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। তবে নিহতের পরিবারের অভিযোগ, হত্যা করা হয়েছে তাদের মেয়েকে।

রিমু আক্তার শহরের দক্ষিণ সালন্দর শান্তিনগর এলাকার তামিম হোসেনের স্ত্রী। 

জানা গেছে, রোববার (২৬ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় রিমু আক্তারকে নিয়ে তার পরিবারের লোকজন হাসপাতালে যায়। তবে কিছু সময় পরই হাসপাতালের জরুরি ওয়ার্ডে লাশটি ফেলে তারা পালিয়ে যায়। পরে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ থানায় খবর দেয়। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের কাছে জানতে পেরে অজ্ঞাত পরিচয়ের লাশটি উদ্ধার করেন থানা পুলিশ। লাশটি থানায় আনার পর গৃহবধূর পরিবারের সন্ধান করা হয়।

গৃহবধূ রিমুর বাবা আলম হোসেন বলেন, অনেক আশা নিয়ে ১০ মাস আগে মেয়েকে বিয়ে দিয়েছিলাম। তবে জামাই নেশাগ্রস্ত থাকায় প্রায়ই মেয়েকে নির্যাতন করত। অনেকবার জামাইকে বুঝিয়েছি। কোনো লাভ হয়নি। কিন্তু এবার তারা মেয়েটাকে মেরেই ফেলল। আমার মেয়ের শরীরে অনেক আঘাতের দাগ রয়েছে। আমি এর বিচার চাই।

এ অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে নিহতের স্বামী তামিম হোসেনের বাসায় গেলে কাউকে পাওয়া যায়নি। মোবাইলে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তার ফোন বন্ধ পাওয়া যায়।

ঠাকুরগাঁও সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তানভিরুল ইসলাম জানান, তামিমের বাসায় গিয়ে পরিবারের কোনো সদস্যকে পাওয়া যায়নি। তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

নাহিদ রেজা/এসপি

Link copied