সাংবাদিক মাসউদুরের বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহার চেয়ে আল্টিমেটাম

Dhaka Post Desk

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক

৩১ অক্টোবর ২০২১, ০৭:৩৫ পিএম


সাংবাদিক মাসউদুরের বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহার চেয়ে আল্টিমেটাম

সংবাদ প্রকাশের জেরে চ্যানেল ২৪ এর সিনিয়র রিপোর্টার মাসউদুর রহমানের বিরুদ্ধে পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রীর ছেলের দায়ের করা ১০০ কোটি টাকার মানহানি মামলা সাত দিনের মধ্যে প্রত্যাহার চেয়ে আল্টিমেটাম দিয়েছে ল’ রিপোর্টার্স ফোরাম (এলআরএফ)। 

রোববার সুপ্রিম কোর্টের মূল ফটকে এক মানববন্ধনে সাংবাদিক নেতারা এ আল্টিমেটাম দেন।

মানববন্ধনে এলআরএফের সভাপতি মাশহুদুল হক বলেন, গত এক যুগ ধরে দেশের উন্নয়ন পরিকল্পনায় পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রীর অনেক সুনাম রয়েছে। কিন্তু সাংবাদিকের বিরুদ্ধে তার ছেলের করা এই মানহানির মামলা প্রতিমন্ত্রীর সুনাম ক্ষুণ্ন করেছে। আমরা সাত দিনের মধ্যে এই মামলা প্রত্যাহারে প্রতিমন্ত্রীকে উদ্যোগ নেওয়ার আহ্বান জানাচ্ছি। অন্যথায় সাংবাদিক সমাজ বৃহত্তর আন্দোলনে গেলে প্রতিমন্ত্রীর সুনাম আরও ক্ষুণ্ন হবে।   

মাশহুদুল হকের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ ইয়াছিনের সঞ্চালনায় ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির (ডিআরইউ) সভাপতি মোরসালিন নোমানী, সাধারণ সম্পাদক মসিউর রহমান খান, সহ-সভাপতি ওসমান গণি বাবুল, সাবেক সহ-সভাপতি আজমল হক হেলাল, জার্মান নিউজ এজেন্সি ডিপিএর বাংলাদেশ প্রতিনিধি নজরুল ইসলাম মিঠু, এলআরএফের সাবেক সভাপতি এম বদি-উজ-জামান, সদস্য শংকর মৈত্র, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের সাবেক যুগ্ম সম্পাদক আক্তার হোসেন, ডিআরইউয়ের সাবেক যুগ্ম সম্পাদক তোফাজ্জেল হোসেন, মঈন উদ্দিন খান, এলআরএফের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মো. দিদারুল আলম দিদার, সহ-সভাপতি আজিজুল ইসলাম পান্নু, সাবেক সাধারণ সম্পাদক এ কে এম রফিকুল হাসান (হাসান জাবেদ), যুগ্ম সম্পাদক মো. সাইদুল ইসলাম, ডিআরইউয়ের সাবেক কার্যনির্বাহী সদস্য সাইফুল ইসলাম, এলআরএফের সাবেক প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মেহেদী হাসান ডালিম, এলআরফের কোষাধ্যক্ষ আব্দুল জাব্বার খান, প্রশিক্ষণ ও কল্যাণ সম্পাদক মো. বাহাউদ্দিন আল ইমরান, সাংবাদিক মাহমুদুল হাসান, এলআরএফের সাবেক অফিস সম্পাদক তানভীর আহমেদ ও এস এম আশিকুজ্জামান মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন।  

গত ২০ অক্টোবর পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী, তার স্ত্রী ও ছেলে মুশফেককে বিবাদী করে হাইকোর্টে রিভিশন মামলা করেন মুসফেক আলমের সাবেক স্ত্রী তাসনোভা ইকবাল। মামলায় মাকে দেখতে না দিয়ে পাঁচ বছরের শিশুকে ১৭ মাস ধরে আটকে রাখার অভিযোগ আনা হয়।

হাইকোর্টে করা এই রিভিশন মামলা নিয়ে গত শুক্রবার চ্যানেল ২৪ এর সাংবাদিক মাসউদুর রহমান প্রতিবেদন করেন। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে চ্যানেল ২৪, চ্যানেলটির বার্তা সম্পাদক ও প্রতিবেদক মাসউদুর রহমানসহ পাঁচজনের নামে ১০০ কোটি টাকার মানহানির মামলা করেন মুশফেক আলম সৈকত। এরপর মামলাটি নিয়ে পিবিআইকে তদন্ত প্রতিবেদন জমার নির্দেশ দেন ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম (সিএমএম) আদালত।

এমএইচডি/আরএইচ

Link copied