স্বামীর সঙ্গে ঝগড়া এড়াতে যা করবেন

Dhaka Post Desk

লাইফস্টাইল ডেস্ক

২৫ জানুয়ারি ২০২২, ১০:৪৫ এএম


স্বামীর সঙ্গে ঝগড়া এড়াতে যা করবেন

দাম্পত্যে ছোটখাটো ঝগড়া ক্ষতিকর কিছু নয়। বরং অনেক সময় এটি সম্পর্ককে স্বচ্ছ করতে কাজ করে। কিন্তু স্বামী-স্ত্রী যখন অনেক বেশি ঝগড়া করে তখন তা দেখতে কুৎসিত লাগে। এতে সম্পর্কও অনেক বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়। অন্যের কাছ থেকে প্রত্যাশা করার আগে, আপনাকে অবশ্যই আপনার দিক থেকে এটি সমাধান করার চেষ্টা করতে হবে। তাই এখানে কয়েকটি উপায় রয়েছে যার মাধ্যমে আপনি আপনার স্বামীর সঙ্গে ঝগড়া এড়াতে পারবেন এবং সবকিছু নষ্ট হওয়ার আগে তা সমাধান করার চেষ্টা করতে পারবেন-

বিরতি নিন

আপনি যদি মনে করেন যে আলোচনাটি উত্তপ্ত হতে চলেছে, তবে বিরতি নিন। ঘর ছেড়ে যান, কিছু পানি পান করুন, আপনার গাছপালা দেখুন। এসব একটি রিসেট বোতামের মতো কাজ করবে। আপনি যখন আবার রুমে প্রবেশ করবেন এবং আপনার সঙ্গীর সঙ্গে কথা বলবেন, তখন দুজনেই নিজেকে শান্ত করবেন এবং সম্ভবত বন্ধুত্বপূর্ণভাবে কথা বলবেন।

আরও পড়ুন : প্রেমে পড়লে ছেলেদের যেসব পরিবর্তন হয়

Dhaka Post

আপনার ভুলগুলো স্বীকার করুন

ঝগড়ার সময়, আপনার প্রশ্নটি কেবল সে কেন এটি করেছিল তা নিয়ে হওয়া উচিত নয়। আপনি অবশ্যই আপনার সঙ্গীকে জিজ্ঞাসা করবেন, আপনি কী ভুল করেছেন। মনোযোগ সহকারে শুনুন এবং এটি আপনার ভুল হলে স্বীকার করুন। নিজের ভুল স্বীকার করা অনেক বড় ঝগড়াকেও থামিয়ে দিতে পারে এবং সেইসঙ্গে এটি আপনার বিবেককেও পরিষ্কার করে।

আরও পড়ুন : সুস্বাদু খোলাজালি পিঠা তৈরির রেসিপি

সমাধান না করে ঘুমাতে যাবেন না

সমস্ত থেরাপিস্ট এবং অভিজ্ঞ দম্পতিরা পরামর্শ দেয় যে, ঝগড়ার সমাধান না করে আপনি কখনোই বিছানায় যাবেন না। সাধারণত আপনি যখন রাগ এবং বিচলিত মন নিয়ে ঘুমান, তখন আপনার মধ্যে শীতল যুদ্ধের প্রবণতা থাকে এবং পরের দিনও উভয়ের মধ্যে এক ধরনের অস্থিরতা চলতে থাকে।

Dhaka Post

আলিঙ্গন

স্পর্শ এবং আলিঙ্গন মানুষের কঠিনতম সমস্যারও সমাধান করতে পারে। কখনো কখনো, একটি স্নেহপূর্ণ সহজ স্পর্শ আপনার সঙ্গীকে শান্ত করতে পারে। তারপর আপনারা সমস্যা সম্পর্কে ঠান্ডা মাথায় কথা বলতে এবং এটি সমাধান করতে পারেন।

আরও পড়ুন : কাঁচা বাদাম খেলে কী হয়?

সহজ উপায় খুঁজে বের করুন

ঝগড়াবিহীন কোনো দম্পতি খুঁজে পাওয়া যাবে না। আপনাদের সম্পর্কে যদি ঝগড়া না থাকে, তবে সেটি স্বাভাবিক নয়। তবে দিনদিন ঝগড়া বাড়তে দেওয়াও কোনো কাজের কথা নয়। কোনো বিষয়ে মতবিরোধ হলে তার সমাধান করার সহজ পদ্ধতি খুঁজে বের করতে হবে।

Link copied