ঢাবিতে উৎসবমুখর পরিবেশে চলছে দেবী সরস্বতীর আরাধনা

Dhaka Post Desk

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক

ঢাবি

২৬ জানুয়ারি ২০২৩, ১০:৫৯ এএম


উৎসবমুখর পরিবেশে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে (ঢাবি) সনাতন ধর্মাবলম্বী হিন্দু সম্প্রদায়ের দেবী সরস্বতীর আরাধনা চলছে।

বৃহস্পতিবার (২৬ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ১০টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের জগন্নাথ হলে অঞ্জলি দেওয়ার মধ্য দিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে পূজার কার্যক্রম শুরু হয়। গেল দু’বছর করোনার কারণে ছোট পরিসরে আয়োজন করা হলেও এবার ঐতিহ্যবাহী রীতিতে পুরোনো আমেজে অনুষ্ঠিত হচ্ছে দেবী বন্দনা।

বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগ ও ইনস্টিটিউট জগন্নাথ হল প্রাঙ্গণজুড়ে বিভিন্ন আইডিয়া ও থিমভিত্তিক ৭৩টি মণ্ডপ তৈরি করা হয়েছে। জগন্নাথ হল উপাসনালয়ে কেন্দ্রীয়ভাবে আয়োজিত একটি পূজা ছাড়াও এই মহোৎসবের বিশেষ আকর্ষণ হিসেবে রয়েছে হলের পুকুরে চারুকলা অনুষদের তৈরি বড় একটি প্রতিমা।

সরস্বতী পূজা উপলক্ষে বিশ্ববিদ্যালয়ের জগন্নাথ হল ছাড়াও রোকেয়া হল, কবি সুফিয়া কামাল হল, শামসুন্নাহার হল, বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিব হল, বাংলাদেশ কুয়েত-মৈত্রী হলকে সাজানো হয়েছে বর্ণিল সাজে এবং বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।

জগন্নাথ হল প্রাঙ্গণে পূজা অর্চনার পাশাপাশি আনন্দে মেতে উঠেছেন দর্শনার্থীরা। শিশুদের খেলার জন্য আছে নানা আয়োজন। বিভাগের মণ্ডপগুলোতে পুরোহিতরা বিভিন্ন ধরনের বাণী ভক্তদের নিয়ে একসঙ্গে পাঠ করছেন। বিভিন্ন বিভাগ ও হলের শিক্ষার্থীরা অংশগ্রহণ করছেন এতে। সব মিলিয়ে পূজাকে ঘিরে উৎসবমুখর পরিবেশ বিরাজ করছে জগন্নাথ হল প্রাঙ্গণে। পরিবার-পরিজন নিয়েও অনেকে এসেছেন পূজা দেখতে।

জগন্নাথ হলের প্রাধ্যক্ষ ও পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি অধ্যাপক ড. মিহির লাল সাহা ঢাকা পোস্টকে বলেন, করোনার পর এবারই প্রথম উৎসাহ-উদ্দীপনা ও পুরোনো আমেজে জগন্নাথ হলে সরস্বতী পূজা পালন করা হচ্ছে। সুন্দর পরিবেশে পূজা উদযাপন চলছে। বিশ্ববিদ্যালয় ও প্রশাসন সর্বাত্মক সহযোগিতা করছে আমাদের। সবাই উপভোগ করছে।

নিরাপত্তার বিষয়ে তিনি বলেন, নিরাপত্তার জন্য পুলিশ প্রশাসন, প্রক্টরিয়াল টিম ও শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলেছি। যাতে একটা সুন্দর পূজা উপহার দেওয়া যায়। এছাড়াও সার্বক্ষণিক ৭০টি সিসিটিভি ক্যামেরা থাকবে। পুলিশ প্রশাসন আমাদের সর্বোচ্চ সহযোগিতা করছে।

এইচআর/ওএফ

Link copied